জমজমাট লড়াই শেষে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ: হাইভোল্টেজ সেমিফাইনালে ভারত-ইংল্যান্ড

post top

 জমজমাট লড়াই শেষে গতকাল শেষ হয়েছে অষ্টম টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভ পর্ব। সুপার টুয়েলভ থেকে সেমিফাইনালের টিকিট নিশ্চিত করেছে ভারত-ইংল্যান্ড এবং নিউজিল্যান্ড-পাকিস্তান। 

সুপার টুয়েলভে গ্রুপ পর্বের শেষ দিনেও ছিলো চমক। অ্যাডিলেড ওভালে নেদারল্যান্ডসের মুখোমুখি হয়েছিরো দক্ষিণ আফ্রিকা। এ ম্যাচ জিতলেই সেমি নিশ্চিত ছিলো তাদের। ডাচদের হারিয়ে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে দক্ষিণ আফ্রিকা  বিশ^কাপের সেমিফাইনাল নিশ্চিত করবে বলেই ধারনা করা হচ্ছিল।  

কিন্তু হিসাব-নিকাশ পাল্টে দেয় নেদারল্যান্ডস। কলিন অ্যাকারম্যানের ২৬ বলে ৪১ রানের সুবাদে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ১৩ রানে হারিয়ে দেয় ডাচরা। আরও একবার হতাশা নিয়েই  বিদায় নিতে হয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকাকে।  

টুর্নামেন্টের  ডার্ক-হর্স হিসেবে বিবেচিত  দক্ষিণ আফ্রিকা এবারও শিরোপা বঞ্চিত হলো ।  তিক্ত হতাশায় সমাপ্তি হলো কোচ মার্ক বাউচারের অধ্যায়। 
বাউচার বলেন, ‘সত্যি বলতে, হতাশ। আমি মনে করি, এই দলের আরও ভালো সুযোগ করার সুযোগ ছিলো।’

তিনি আরও বলেন, ‘দুর্ভাগ্যবশত এটি আমাদের পক্ষে যায়নি। যা আমার জন্য এবং অবশ্যই এই মুহূর্তে আমাদের ড্রেসিংরুমে থাকা সকলের জন্য খুবই হতাশাজনক।’
গ্রুপ-২এ চতুর্থ হয়ে  বিশ্বকাপ শেষ করেছে নেদারল্যান্ডস। তাই পরবর্তী বিশ্বকাপের জন্য বাছাই পর্বে খেলতে হবে না ডাচদের।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৯ রানে ৩ উইকেট নেয়া বোলার ব্র্যান্ডন গ্লোভার বলেন, ‘আমাদের সামনে  এখন সরাসরি বিশ^কাপে খেলার সুযোগ । আমি মনে করি, এটি আত্মবিশ্বাস যোগাবে এবং ডাচ ক্রিকেটের জন্য খুব ভাল দিক। আশা করি আমরা এই সুবিধা আদায় করে নিতে পারবো।’
দারুন পারফরমেন্স দিয়ে  গ্রুপ-২ এ সবার নজর কেড়েছে  নেদারল্যান্ডস। প্রোটিয়াদের বিপক্ষে ডাচদের জয়ে জিম্বাবুয়ের সাথে গ্রুপের শেষ ম্যাচে আগে সেমির টিকিট পায় ভারত। গ্রুপে বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচকে কোয়ার্টার ফাইনালে রুপ দিয়েছিলো তারা। 
বাংলাদেশের বিপক্ষে ২২ রানে ৪ উইকেট নিয়ে পাকিস্তানকে শেষ চারে তুলেন পেসার শাহিন শাহ আফ্রিদি। তিন মাস হাঁটুর ইনজুরির সাথে লড়াইর পর মাঠে ফিরে অবশেষে স্বরুপে দেখা গেছে আফ্রিদিকে। 

ভারতের কাছে হতাশার হার দিয়ে বিশ্বকাপ শুরু করে পাকিস্তান। পরের ম্যাচে আরও বড় ধাক্কা খায় পাকরা। জিম্বাবুয়ের কাছে ১ রানে হেরে যায় তারা। টানা দুই হারে বিশ^কাপ শেষ দেখছিলো পাকিস্তান। শেষ তিন ম্যাচে জয় তুলে নিয়ে নাটকীয়ভাবে সেমির টিকেট  নিশ্চিত করেছে  বাবর-রিজওয়ানরা। 

বুধবার সিডনির মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে টুর্নামেন্টের প্রথম সেমিফাইনালে গত বিশ্বকাপের রানার্স আপ  নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হবে পাকিস্তান। 
গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে ৭১ রানে হারায় ভারত। শেষ ম্যাচের জয়ে চিরপ্রতিন্দ্বন্দি পাকিস্তানকে টপকে গ্রুপ-২এর শীর্ষ স্থান নিশ্চিত করে  টিম ইন্ডিয়া। বৃহস্পতিবার অ্যাডিলেড ওভালে দ্বিতীয় সেমিফাইনালে  জস বাটলারের ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হবে ভারত।
সূর্যকুমার যাদবের বিষ্ফোরক ৬১ এবং লোকেশ রাহুলের ৫১ রানের সুবাদে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে প্রথমে ব্যাট করে ৫ উইকেটে ১৮৬ রান করে ভারত। পরে মেলবোর্নে ৮২,৫০৭ দর্শকের  উপস্তিতিতে  যাদের মধ্যে  অধিকাংশই ভারতীয়।  নিজ দলের এই বিশাল  সমর্থদকদের  সামনে জিম্বাবুয়েকে ১১৫ রানে অলআউট করে দেয় টিম ইন্ডিয়া  বোলাররা।
ভারত অধিনায়ক রোহিত শর্মা বলেন, ‘ এমন ধরনের ম্যাচে আমরা সব সময়ই দর্শকদের কাছ তেকে উৎসাহ পেয়েছি। আমরা যেখানেই গিয়েছি, সবখানেই পুরো স্টেডিয়ামে ভরা ছিলো। সেমিফাইনালেও একই প্রত্যাশা করি। দলের পক্ষ থেকে, আমি সত্যিই তাদের ধন্যবাদ জানাতে চাই।’

গ্রুপ-১এ সমান ৭ করে পয়েন্ট ছিলো নিউজিল্যান্ড- ইংল্যান্ড এবং বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার। নেট রান রেটের পিছিয়ে থাকার কারনে সুপার টুয়েলভ থেকেই বিশ^কাপ মিশন শেষ করতে হয় স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়াকে। ইংল্যান্ডকে পেছনে ফেলে শীর্ষ স্থান দখলে নেয় ব্ল্যাক ক্যাপসরা।
এবারের  বিশ্বকাপে  আলোচনায় আছে বৃষ্টি- অঘটন!
বিশ^কাপের প্রথম দিনই অঘটনের জন্ম দেয় নামিবিয়া। প্রথম রাউন্ড এশিয়ার চ্যাম্পিয়ন শ্রীলংকাকে ৫৫ রানে হারায় নামিবিয়া।

তবে  সুপার টুয়েলভে ঠিকই জায়গা করে নেয় শ্রীলংকা। তাদের সাথে সুপার টুয়েলভে খেলেছে আয়ারল্যান্ড। দু’বারের চ্যাম্পিয়ন ওয়েস্ট ইন্ডিজকে প্রথম রাউন্ড থেকেই দেশের  টিকেট ধরিয়ে দিয়েছে  আয়ারল্যান্ড।  

বৃষ্টি আইনে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে ইংল্যান্ডকে হারায় আয়ারল্যান্ড। সেমফিাইনালের  আগেই  বিদায়  নিয়েছে ইংলিশদের সাথে টুর্নামেন্ট হট ফেভারিট অস্ট্রেলিয়াও।
নিউজিল্যান্ডের পর  শ্রীলংকার বিপক্ষে দুই বল বাকি থাকতে চার উইকেটের জয়ে সেমিতে উঠে ইংলিশরা।

রোহিত বলেন, ‘ইংল্যান্ড একটি ভাল দল এবং প্রতিন্দ্বন্দিতাপূর্ণ ম্যাচ হবে। 
তিনি আরও বলেন, ‘প্রথমত, সেমিতে উঠতে পারায় আমাদের গর্ব করা উচিত। সেমিফাইনালে ভালো খেলতে পারলে  আমাদের আরেকটি বড় ম্যাচ খেলার সুযোগ আছে।’

print

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three + twenty =