আশুলিয়ায় চাঁদাবাজির অভিযোগে গ্রেফতার সোহাগকে রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ

post top

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট: সাভারের আশুলিয়ায় চাঁদাবাজির অভিযোগে সোহাগ মুন্সী নামের (২৬) এক কথিত যুবলীগ কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার রাতে আশুলিয়ার বাইপাইলের একটি এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে আশুলিয়া থানা পুলিশ। পরে তাকে সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়। আটক যুবলীগ কর্মী সোহাগ আশুলিয়া থানা যুবলীগের কর্মী দাবি করলেও আশুলিয়া থানা যুবলীগের আহবায়ক কবির হোসেন সরকার তা অস্বীকার করে বলেছেন সোহাগ যুবলীগের কর্মী বা সদস্য নন। কোন চাঁদাবাজের যুবলীগে জায়গা নেই বলেও জানান তিনি।

এদিকে আটক কথিত যুবলীগ কর্মী আশুলিয়া থানা যুবলীগ নেতা কবির হোসেন সরকার ও মঈনুল ইসলাম ভূঁইয়ার সাথে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে ছবি তুলে মানুষকে ভয়ভিতি দেখিয়ে এলাকায় নানা অপকর্ম করে যাচ্ছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

পুলিশ জানায়, চাঁদাবাজির মামলায় রাতে আশুলিয়ার বাইপাইলের একটি এলাকা থেকে সোহাগ মুন্সীকে আটক করে দুপুরে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

এলাকাবাসী জানায়, আটক যুবলীগ কর্মী সোহাগ মুন্সীর নামে চাঁদাবাজি ধর্ষণসহ নানা অভিযোগে আশুলিয়া থানায় বেশ কয়েকটি মামলা রয়েছে। এত অপকর্মের পরেও সে কিভাবে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছে এলাকাবাসী প্রশ্ন তুলেছেন। আটক যুবলীগ কর্মী সোহাগ মুন্সীর সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানিয়েছেন এলাকাবাসী। তাকে আটক করায় এলাকাবাসী সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

এদিকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সুদীপ কুমার গোপ বলেন, চাঁদাবাজির মামলায় সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে দুপুরে তাকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন।

print

Share this post

post bottom

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

2 + 9 =