‘অনিয়ম বন্ধে ভ্যাট মেশিন বসানোর কার্যক্রম উদ্বোধন

post top

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম বলেছেন, ভ্যাটের অনিয়ম বন্ধ করতেই ইলেকট্রনিক ফিসক্যাল ডিভাইস (ইএফডি) ইএফডি চালু করা হচ্ছে। ইএফডি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান থেকে রাজস্ব আহরণ ব্যবস্থায় একটি যুগান্তকারী পরিবর্তন আনবে।

মঙ্গলবার এনবিআরের সম্মেলন কক্ষে মুজিববর্ষের কর্মসূচির অংশ হিসেবে পাইলট বেসিসে ইএফডি মেশিন কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এই কথা বলেন।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, ইএফডি মেশিন ব্যবহারের ফলে হয়রানি দূর হবে এবং রাজস্ব আহরণের ব্যয় ও ব্যবসায়িক খরচ কমবে। কর পরিহারের সুযোগ থাকবেন না। রাজস্ব আদায়ে গতি আসার পাশাপাশি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান অটোমেশনের আওতায় আসবে।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, ক্রেতাদের কাছ থেকে ব্যাপক সাড়া পাওয়া যাবে বলে আশা করছি। আস্থার জায়গা তৈরি করতে পারবো। প্রাথমিকভাবে ১০০ মেশিন বসানো হলো। পর্যায়ক্রমে আগামী তিন মাসের মধ্যে এক হাজার ইএফডি মেশিন বসানো হবে। আগামী জুনের মধ্যে এক লাখ ইএফডি মেশিন বসানোর লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে।

আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম বলেন, কেউ যদি অপ্রদর্শিত অর্থ বিনিয়োগ করতে চায় সেক্ষেত্রে কোনো প্রতিষ্ঠান প্রশ্ন করতে পারবে না। আমরা সব প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে কথা বলেছি। যদি কোনো প্রতিষ্ঠান এ নিয়ে প্রশ্ন তোলেন, তাদের সেটা অন্যায় হবে। তবে এক্ষেত্রে কেউ চাইলে আইনের আশ্রয় নিতে পারবে। সরকার আইন করে অপ্রদর্শিত অর্থ বিনিয়োগ করতে বলেছেন। এখানে কেউ প্রশ্ন রাখতে পারে না। তবে আমার মনে হয় কাউকেই আইনের আশ্রয় নিতে হবে না। পুঁজিবাজারে অপ্রদর্শিত অর্থ বিনিয়োগের ফলে অর্থের প্রবাহ বেড়েছে। তবে রিটার্নের ক্ষেত্রে তেমন সাড়া পড়েনি। রিটার্ন আসলে বোঝা যাবে কী পরিমাণ অপ্রদর্শিত অর্থ বিনিয়োগ হয়েছে।

এনবিআর গত অর্থবছর ইএফডি চালুর প্রক্রিয়া শুরু করে। এর আগে ২০০৮ সালে পরীক্ষামূলকভাবে ইসিআর মেশিন ব্যবহার করা হয়। তবে তা সফল হয়নি। এরপর ইএফডি মেশিন বসানোর পরিকল্পনা নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে কাজ চলছে। এক লাখ মেশিন কেনার নীতিগত অনুমোদনও দেয়া হয় ক্রয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভার কমিটির বৈঠকে।

অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি কম্পট্রোলার অ্যান্ড অডিটর জেনারেল অব বাংলাদেশ মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী এবং এফবিসিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিমসহ ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

print

Share this post

post bottom

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

6 + 5 =